বাণী চিরন্তন

নারী নিয়ে ৫০ টি বিখ্যাত বাণী

3.4/5 - (19 votes)

প্রিয় বন্ধুরা আজ নারী সম্পর্কিত বেশ কয়েকটি জনপ্রিয় বাণী নিয়ে তোমাদের মাঝে হাজির হলাম। তাহলে চল বাণীগুলো দেখা যাক।

নারী দিবস – ৮ই মার্চ সম্পর্কে পড়ুন

১। ব্যবহার করা কপালের টিপটার আঠা নষ্ট হলেও মেয়েরা সেটা যত্ন করে রেখে দেয়। একজোড়া কানের দুলের একটা হারিয়ে গেলেও অন্যটা ফেলে না। পুরাতন শাড়িটা ভাঙা চুড়িটা কাজে লাগবেনা জেনেও তুলে রাখে, কারণ হল মায়া। মেয়েরা মায়ার টানে ফেলনা জিনিষও ফেলে না। অসংখ্য কষ্ট , যন্ত্রণা পেয়েও মেয়েরা মায়ারটানে একটা ভালোবাসা, একটা সম্পর্ক, একটা সংসার টিকিয়ে রাখতে চায়। এই জন্য মেয়েরা মায়াবতী আর মায়াবতীর কোন পুরুষবাচক শব্দ নেই! হুমায়ূন আহমেদ

২। রমনী এক রকম অনাবশ্যক ইচ্ছা বিবর্ণ ঝাঁঝাঁলো সম্প্রতি নারী শুধু কাচের ছায়া, অপ্রতিবিম্ব কাচ, শুধুমাত্র কাচ – রুদ্র মুহাম্মদ শহীদুল্লাহ

৩। চরিত্রহীনা নারী চরিত্রহীন পুরুষের জন্য, আর চরিত্রহীন পুরুষ চরিত্রহীনা নারীর জন্য। সৎ চরিত্রবতী নারী সৎ চরিত্রবান পুরুষের জন্য, আর সৎ চরিত্রবান পুরুষ সৎ চরিত্রবতী নারীর জন্য। আল কুরআন

৪। তুমি আমাকে শিক্ষিত মা দাও, আমি তোমাকে শিক্ষিত জাতি দিবো – নেপোলিয়ন বোনাপার্ট

৫। নারীর হৃদয় সাপের, বুদ্ধি গাধার, রূপটা দেবীর, চোখটা ধাঁধার– প্রবাদ

৬। হে নারী, কেউ যদি তোমাকে ধর্ষণ করতে আসে, তুমিও তাকে ধর্ষণ করে দাও। পুরুষদের দেখিয়ে দাও, ধর্ষণ শুধু তারা নয়, তোমরাও পারো। – তসলিমা নাসরিন

৭। পৃথিবীর ইতিহাসে, কোনও অন্ধকার সমাজে যখনই কোনও নারী পুরুষতন্ত্রের বিরুদ্ধে রুখে উঠেছে, নিজের স্বাধীনতার কথা বলেছে, ভাঙতে চেয়েছে পরাধীনতার শেকল, তাকেই গালি দেওয়া হয়েছে পতিতা বলে। – তসলিমা নাসরিন

৮। একজন মেয়ে একজন পুরুষকে বিয়ে করে পুরুষটির চরিত্রের জন্য, তারপর সারা জীবন চেষ্টা করে সেই চরিত্রটি বদলাবার – প্রবাদ

৯। কোনকালে একা হয়নিকো জয়ী, পূরুষের তরবারী; প্রেরনা দিয়েছে, শক্তি দিয়াছে, বিজয়ালক্ষী নারী – কাজী নজরুল ইসলাম

নারী নিয়ে ৫০ টি বিখ্যাত বাণী

১০। যখন রাত আসে তখন ঘুম আসে যখন ঘুম আসে তখন স্বপ্ন আসে যখন স্বপ্ন আসে তখন তুমি আসো – যখন তুমি আসো তখন ঘুমও আসে না, স্বপ্নও আসে না। – নিমাই ভট্টাচার্য

১১। বধু তোমার গরবে গরবিনী নাম রুপসী তোমার রুপে হেন মনে হয় ও দুটি চরণ সদা নিয়ে রাখি বুকে – জ্ঞানদাস

১২। দরিদ্র পুরুষদের প্রতি মেয়েদের একপ্রকার মায়া জন্মে যায়, আর এই মায়া থেকে জন্মায় ভালোবাসা – হুমায়ূন আহমেদ

১৩। সুন্দরী মেয়েদের হাতের লেখা সুন্দর হয়। এটা হল নিপাতনে সিদ্ধ। সুন্দরীরা মনে প্রাণে জানে তারা সুন্দর। তাদের চেষ্টাই থাকে তাদের ঘিরে যা থাকবে সবই সুন্দর হবে। – হুমায়ূন আহমেদ

১৪। মেয়েরা অতি দূরের আত্মীয়কে কাছের মানুষ প্রমাণ করার জন্যে চট করে তুই বলে – হুমায়ূন আহমেদ

১৫। যে পুরুষ অসংশয়ে অকুন্ঠিতভাবে নিজেকে প্রচার করিতে পারে সেই সমর্থ পুরুষ সহজেই নারীর দৃষ্টি আর্কষণ করিতে পারে। – রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর

১৬। মেয়েদের চরিত্রের মাধুর্য পাওয়া যায় কুমারী অবস্থায় – প্রবোধকুমার সাণ্যাল

১৭। সাধারণত স্ত্রীজাতি কাঁচা আম, ঝাল লঙ্কা এবং কড়া স্বামীই ভালোবাসে। যে দুর্ভাগ্য পুরুষ নিজের স্ত্রীর ভালোবাসা হইতে বঞ্চিত সে – যে কুশ্রী অথবা নির্ধন তাহা নহে; সে নিতান্ত নিরীহ। – রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর

১৮। নারী দাসী বটে, কিন্তু সেই সঙ্গে নারী রাণীও বটে – রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর

১৯। নিজেদের অধিকারের ব্যপারে সামান্য সচেতন হলে মেয়েরা নিশ্চয়ই বুঝতো যে জগতে যত নির্যাতন আছে মেয়েদের বিরূদ্ধে সবচেয়ে বড় নির্যাতন হল , মেয়েদেরকে সুন্দরী হওয়ার জন্য লেলিয়ে দেওয়া – তসলিমা নাসরিন

২০। মেয়েমানুষের এরকম হয়, ওরকম হয়, সব রকম হয়, শুধু মনের মত হয় না। – মানিক বন্দ্যোপাধ্যায়

নারী নিয়ে ৫০ টি বিখ্যাত বাণী

২১। স্ত্রীলোকদের ব্যাপারে তোমরা কল্যাণের উপদেশ গ্রহণ কর। কেননা তাদেরকে তৈরীই করা হয়েছে পাঁজরের হাড় থেকে, আর পাজরের যা সবচেয়ে বক্র তা উপরের অংশে থাকে। তুমি যদি তা সোজা করতে যাও তবে তা ভেঙ্গে যাবে। আর যদি এমনি ছেড়ে দাও তবে তা চিরদিন বক্রই থেকে যাবে। অতএব, তাদের ব্যাপারে কল্যাণের অসিয়ত গ্রহণ কর। – আল হাদিস

২২। ছেলেটি তার বিছানা গুছিয়ে না রাখলে মা খুশি হয়, দেখতে পায় একটি পুরুষের জন্ম হচ্ছে; কিন্তু মেয়েটি বিছানা না গোছালে একটি নারীর মৃত্যু দেখে মা আতংকিত হয়ে পড়ে – হুমায়ূন আজাদ

২৩। পুরুষের বুদ্ধি খড়গের মতো; শান বেশি না দিলেও কেবল ভারেই অনেক কাজ করতে পারে। মেয়েদের বুদ্ধি কলম-কাটা ছুরির মতো; যতই ধার দাওনা কেনো, তাতে বৃহৎ কাজ চলে না। – রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর

২৪। ছেলেদের জন্য পৃথিবীতে সব চাইতে মূল্যবান হল মেয়েদের হাসি – হুমায়ূন আহমেদ

২৫। যে গর্ভ তোমাকে ধারন করেছে সে গর্ভধারিণী মায়ের প্রতি কর্তব্য কর ও শ্রদ্ধা নিবেদন কর – আল কুরআন

২৬। মেয়েদের চোঁখে দুই রকমের অশ্রু থাকে, একটি দুঃখের অপরটি ছলনার – পিথাগোরাস

২৭। পৃথিবীতে বা সমুদ্রে যত হিংস্র প্রাণী আছে সবছেয়ে বৃহত্তম প্রাণী হল মেয়েরা। – মেনানডির

২৮। যে সমাজে শিক্ষিত, স্বনির্ভর, সচেতন মেয়ের সংখ্যা বেশি, সেই সমাজে বিচ্ছেদের সংখ্যাটা বেশি, বিয়ের সংখ্যাটা কম। – তসলিমা নাসরিন

২৯। মেয়েদের স্বভাবই হচ্ছে হালকা জিনিস নিয়ে মাতামাতি করা – হুমায়ূন আহমেদ

৩০। গল্প উপন্যাস হল অল্প বয়সী মেয়েদের মাথা খারাপের মন্ত্র – হুমায়ূন আহমেদ

৩১। কাজল ছাড়া মেয়ে দুধ ছাড়া চায়ের মত – হুমায়ূন আহমেদ

৩২। গত দু-শো বছরে গবাদিপশুর অবস্থার যতোটা উন্নতি ঘটেছে নারীর অবস্থার ততোটা উন্নতি ঘটে নি – হুমায়ূন আজাদ

নারী নিয়ে ৫০ টি বিখ্যাত বাণী

৩৩। পুরুষতান্ত্রিক সভ্যতার শ্রেষ্ঠ শহীদের নাম মা – হুমায়ূন আজাদ

৩৪। ও যৌবন ঘুমেরই স্বপন সাধন বিনে নারীর সনে হারাইলাম মূলধন – হাসন রাজা

৩৫। মহিলাদের ঘ্রাণশক্তি খুবই প্রবল। আমার এক বন্ধুপত্নী স্বামীর সাথে টেলিফোনে আলাপের সময়ও তার স্বামীর মুখে হুইস্কির ঘ্রাণ পান। – হুমায়ূন আজাদ

৩৬। নারী সম্পর্কে আমি একটি বই লিখছি; কয়েকজন মহিলা আমাকে বললেন, অধ্যাপক হয়ে আমার এ-বিষয়ে বই লেখা ঠিক হচ্ছে না। আমি জানতে চাইলাম, কেনো ? তাঁরা বললেন, বিষয়টি অশ্লীল ! – হুমায়ূন আজাদ

৩৭। সারাদিন মেকাপ নিয়ে ব্যস্ত থাকলে দিন বদল দেখবে কেমনে? – খালেদা জিয়াকে উদ্দেশ্য করে – মতিয়া চৌধুরি

৩৮। প্রতিটা মেয়ে হয়ত তার স্বামীর কাছে রানী হয়ে থাকতে পারে না। কিন্তু প্রতিটা মেয়েই তার বাবার কাছে রাজকন্যা হয়ে থাকে – হুমায়ূন আহমেদ

৩৯। মেয়েরা ব্যাক্তিগত চাহিদার কাছে কখনো পরাজিত হয় না – হুমায়ূন আহমেদ

৪০। যে নারীকে ঘুমন্ত অবস্থায় সুন্দর দেখায় সেই প্রকৃত রূপবতী – হুমায়ূন আহমেদ

৪১। বিশ্বের নারী নেতারা নারীদের প্রতিনিধি নয়; তারা সবাই রুগ্ন পিতৃতন্ত্রের প্রিয় সেবাদাসী – হুমায়ূন আজাদ

৪২। এরশাদের প্রধান অপরাধ পরিবেশদূষন: অন্যান্য সরকারগুলো পুরুষদের দূষিত করেছে, এরশাদ দূষিত করেছে নারীদেরও – হুমায়ূন আজাদ

৪৩। পৃথিবী জুড়ে প্রতিটি নরনারী এখন মনে করে তাদের জীবন ব্যর্থ; কেননা তারা অভিনেতা বা অভিনেত্রী হতে পারেনি – হুমায়ূন আজাদ

৪৪। অধিকাংশ রূপসীর হাসির শোভা মাংসপেশির কৃতিত্ব, হৃদয়ের কৃতিত্ব নয় – হুমায়ূন আজাদ

৪৫। মেয়েরা যখন শক্তিরূপা হয়ে ওঠে তখন পৃথিবীতে অনেক বড় পরিবর্তন আসে।

৪৬। আমি বলতে চাইনা যে সামনের জন্মে আমি মেয়ে হতে চাইনা। বরং এটাই বলতে চাই যে যতবার জন্মাই যেন মেয়ে হয়ে জন্মাই।

৪৭। নারীবাদী হওয়া মানে মেয়েদের শক্তিশালী করা নয়, তাঁরা এমনিতেই শক্তিশালী।

৪৮। মেয়েদের শুধু অন্যের ভালো স্ত্রী হয়ে ওঠা শেখালে চলবে না। তাঁদেরকে সবার আগে যোগ্য করে তুলতে হবে।

৪৯। জগতের যেখানেই যে জাতি নারীর অসম্মান করবে,সেই জাতিরই পতন নিশ্চিত। নারীদের সম্মান করো।

৫০। নারী শব্দটাই তো শক্তির সঙ্গে জড়িত। তাই আলাদা করে নিজেকে শক্তিশালী প্রমাণ করার দরকার নেই।


 এই রকম আরও তথ্য পেতে আমাদের ফেসবুক পেজে লাইক দিয়ে যুক্ত থাকুন। এর পাশাপাশি গুগল নিউজে আমাদের ফলো করুন। 

Rimon

This is RIMON Proud owner of this blog. An employee by profession but proud to introduce myself as a blogger. I like to write on the blog. Moreover, I've a lot of interest in web design. I want to see myself as a successful blogger and SEO expert.

মন্তব্য করুন

Related Articles

Back to top button