রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়াতে কোন কোন খাবার খাবেন?


    বর্তমান করোনা পরিস্থিতিতে এখন বাড়ি থেকে বেরতে ভয় লাগছে। আবার বাহিরের কেউ বাসায় আসলেও ভয়ে অস্থির হয়ে থাকছি আমরা। এই বুঝি সংক্রমিত হয়ে পড়লাম! এই অবস্থায় নিজের এবং পরিবারের সবাইকে সুস্থ রাখতে এমন খাবার খান, যা আপনাকে সুস্থ রাখবে এবং রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়াবে
    তাছাড়া এই দুঃসময়ে আপনার শরীরের রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতাকেও শক্তিশালী করে তুলবে যদি আপনি পুষ্টিকর খাবার খান।


    এই সময়ে বেশি করে লেবু খান। যে কোনও লেবুতেই প্রচুর পরিমাণে ভিটামিন-সি থাকে। তাই যতদিন বাজারে লেবু পাওয়া যাচ্ছে , অবশ্যই লেবু খাবেন। ঘুম থেকে ওঠার পর কুসুম গরম পানিতে লেবু চিপে নিয়ে খেতে পারেন। অথবা চায়ের সঙ্গে লেবু মিশিয়ে খেতে পারেন, দুধের পরিবর্তে। আপনার খাদ্যতালিকায় কমলা বা মুসাম্বি লেবু নিয়মিত রাখুন । লেবু আমাদের দেহের রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়ায়। তাছাড়া এটি শরীরের চর্বিও কাটায়

    লেবু ছাড়াও অন্যান্য ফল যেমনঃ পেয়ারা, পেঁপে, কলা, কিউয়িও ইত্যাদি খেতে পারেন। তবে ওই সব ফলও খুব বেশি দিন বাজারে পাবেন না। তখন ভরসা রাখতে হবে আদা আর হলুদের উপর।


    হলুদ, বিশেষ করে কাঁচা হলুদ ‘কারকিউমিন’ নামক একটি যৌগের গুণে সমৃদ্ধ। এটি নানা ধরনের প্রদাহ কমাতে সাহায্য করে । অনেক রকমের ক্রনিক ব্যথাও সারাতে কাঁচা হলুদ উপকারী । তাই সাধারণ গলা ব্যথা বা কাশি হলে আগে আদা, গোলমরিচ, হলুদ আর মধু এক সঙ্গে ভাল করে ফুটিয়ে তারপর ছেঁকে নিয়ে খেতে পারেন। তাছাড়া আদা হজমের দারুন সহায়ক।


    প্রতি দিনের রান্নায় এখন রসুনের ব্যবহার বাড়াতে পারেন। বিশ্বের অনেক জায়গাতেই রান্নায় রসুন ব্যবহারের প্ররচলন রয়েছে অনেক দিনই। কারণ, মানুষ বহু দিন আগেই বুঝেছিল, রসুন নানা রকমের সংক্রমণ খুব ভাল ভাবে ঠেকাতে পারে।

    চা খান না এমন মানুষ পাওয়া খুবই দুস্কর। সে ক্ষেত্রে এখন আরও একটু বেশি আস্থা রাখুন ‘গ্রিন টি’-এর উপর। ঘরে যদি আমন্ড বাদাম রাখা থাকে, তা হলে খুব ভাল। আমন্ডও অনেক দিন সংগ্রহ করে রাখা যায় এবং তার থেকে পাওয়া যায় ভিটামিন- ই। ভিটামিন- ই শরীরের রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতাকে আরো শক্তিশালী করে।

    পুষ্টিকর খাবারের পাশাপাশি কমপক্ষে ৩০ মিনিট হালকা ব্যায়াম করুন। কারন নিয়মিত ব্যায়াম আপনার শরীরের রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা যেমন শক্তিশালী করবে তেমই আপনার মনকেও সতেজ রাখবে।

    ছবি ঃ পেক্সেল

    0 Comments