ভাষণ

মে দিবস নিয়ে বক্তব্য ভাষণ – পহেলা মে । May Day Speech (PDF)

5/5 - (3 votes)

মে দিবস নিয়ে বক্তব্য ভাষণ: পহেলা মে। সারা বিশ্বব্যপি ১ মে শ্রমিক দিবস হিসেবে পালন করা হয়। মে দিবসকে ঘিরে অনেক বক্তব্য ভাষণের আয়োজন করা হয়।তেমনি একটি মে দিবস নিয়ে বক্তব্য ভাষণ নিয়ে হাজির হয়েছি। আশা করছি আপনাদের উপকারে আসবে।

মে দিবসের বক্তব্য ভাষণ

সম্মানিত অতিথিবৃন্দ,
মে দিবসের আজকের দিনে আমাকে কিছু বলার সুযোগ দেওয়ার জন্য নিজেকে ভাগ্যবান মনে করছি।

পহেলা মে-কে সারাবিশ্বে মে দিবস হিসেবে পালন করা হয়। এই দিবসটি পালিত হওয়ার পেছনে এক রক্তাক্ত ইতিহাস জড়িত। বিশ্বের সর্বত্রই শ্রমিক শোষিত হচ্ছে ধনকুবেরদের কর্তৃক। তাই শ্রমিকরা তাদের প্রাপ্ত দাবি-দাওয়া আদায়ের জন্য ১৮৮৬ সালে আমেরিকায় এক শ্রমিক ধর্মঘটের আহ্বান করে।

প্রায় তিন হাজার শ্রমিক সংবলিত এক বিশাল র‍্যালির আয়োজন করা হয় ৮ ঘণ্টা কর্মকালের জন্য। ফলে মালিকশ্রেণির সাথে শ্রমিকশ্রেণির সংঘাত অনিবার্য হয়ে ওঠে। এতে ঘটনাস্থলেই নিহত হয় চারজন শ্রমিক। ফলে ৪ মে বিক্ষুব্ধ শ্রমিকরা আন্দোলনের ডাক দেন। মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের হে মার্কেট স্কয়ারে পুনরায় গণ-আন্দোলনের মাঝে আবার পুলিশ গুলি ছোড়ে। এতে আবার অনেক শ্রমিক নিহত হয়। এমনকি শেষ পর্যন্ত এটি বিশাল দাঙ্গায় রূপ নেয়।

[box type=”note” align=”” class=”” width=””]আরও পড়ুনঃ বিশ্ব স্বাস্থ্য দিবসে বক্তৃতা ভাষণ । ৭ই এপ্রিল বিশ্ব স্বাস্থ্য দিবস[/box]

আন্দোলনের সাথে জড়িত কয়েকজনকে দাঙ্গা মামলায় আসামি করা হয়। সাম্রাজ্যবাদী বিশ্বে সবকিছুই অভিনয় ও ভাব। তাই আদালত সরাসরি কোনো প্রমাণ না পেলেও ক’জনকে মৃত্যুদণ্ডের আদেশ দেয়। এমনকি ১৮৮৭ সালের ১১ নভেম্বর আসামিদের ফাঁসি কার্যকর করা হয়। এর ফলে বিশ্বে প্রতিবাদের ঝড় ওঠে।

এরই পরিক্রমায় ১৮৮৯ সালের জুলাই মাসে ফ্রান্সের প্যারিসে ইন্টারন্যাশন্যাল লেবার কংগ্রেসের আয়োজন করা হয় এবং এখানেই প্রতি বছর পহেলা মে-কে মে দিবস হিসেবে পালনের সিদ্ধান্ত নেওয়া হয় । এর ফলে শ্রমিকরা তাদের কার্যকাল কিছুটা কমাতে সমর্থ হয়।

আন্দোলন ব্যতীত কখনোই অধিকার আদায় হয় না। মে দিবস বিশ্বের সাম্রাজ্যবাদী শক্তির বিরুদ্ধে, অন্যায়ের বিরুদ্ধে প্রতিবাদের এক অসামান্য হাতিয়ার।

[box type=”note” align=”” class=”” width=””]আরও পড়ুনঃ ১৪ এপ্রিল পহেলা বৈশাখ মঞ্চ ভাষণ। নববর্ষ উপলক্ষে বক্তব্য (PDF)[/box]

সেদিনের শ্রমিকদের আন্দোলন ছিল তাদের অধিকার পাওয়ার আন্দোলন। এই আন্দোলন আজও চলছে। বাংলাদেশসহ পৃথিবীর নানা প্রান্তে শ্রমিকরা লাঞ্ছিত হচ্ছে, তাদের ন্যায্য অধিকার থেকে বঞ্ছিত হচ্ছে। অনেক শ্রমিক তাদের সঠিক মজুরি পাচ্ছে না।

আসুন আজকের এই মে দিবসে আমরা সবাই প্রতিজ্ঞা করি, আমরা যেন শ্রমিকদের সঠিক সম্মান ও তাদের অধিকার আদায়ের জন্য হাতে হাত রেখে একসাথে কাজ করি। তবেই মে দিবস সার্থক ও সফলমণ্ডিত হবে। এই আশাবাদ ব্যাক্ত করে আমার বক্তব্য শেষ করছি।

ধন্যবাদ।

[divider style=”normal” top=”10″ bottom=”10″]

মে দিবস নিয়ে বক্তব্য ভাষণ আপনাদের কেমন লাগলো তা কমেন্ট করে অবশ্যই জানাবেন।


 এই রকম আরও তথ্য পেতে আমাদের ফেসবুক পেজে লাইক দিয়ে যুক্ত থাকুন। এর পাশাপাশি গুগল নিউজে আমাদের ফলো করুন। 

Rimon

This is RIMON Proud owner of this blog. An employee by profession but proud to introduce myself as a blogger. I like to write on the blog. Moreover, I've a lot of interest in web design. I want to see myself as a successful blogger and SEO expert.

মন্তব্য করুন

Related Articles

Back to top button